ভাতের হাড়ির গরম জলে পড়ে মৃত্যু শিশুর। ঘটনাটি হেমতাবাদের

ওয়েবডেস্কঃ

পরিবার সূত্রের খবর, মৃত শিশুটি এবং তার মা-বাবা পাঞ্জাবে থাকতেন। তাঁদের বাড়ি উত্তর দিনাজপুরের হেমতাবাদে। জানা গেছে, ক’দিন আগে শিশুটির মা রান্না করছিলেন। ভাতের জন্য গরম জল হাঁড়ির মধ্যে ছিল। পাশেই শিশুটি খেলছিল। খেলতে খেলতে শিশুটি গরম হাঁড়ির মধ্যে আচমকা পরে যায়।

ফলে মুখ পুরে যায়। তড়িঘড়ি স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখান থেকে চিকিৎসকেরা স্থানান্তরিত করেন। সেখান থেকে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে গতকাল ভর্তি করানো হয় শিশুটিকে। চিকিৎসা চলাকালীন শিশুটি আজ সকালে মারা যায় বলার চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন। ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে গোটা পরিবার জুড়ে।

25