ধূমপানে বাধা দেওয়ায় আত্মঘাতী করণদিঘির নাবালক

ওয়েবডেস্কঃ

ধূমপান বা নেশাজাতীয় দ্রব্যের সেবন ধীরে ধীরে ধ্বংসের পথে নিয়ে যাচ্ছে বর্তমান যুবসমাজকে। শুধু যুব সমাজই নয় নেশা শক্ত হয়ে পড়ছে বর্তমানের খুদেরাও। ছোটু প্রাইমারি স্কুলের গণ্ডি পেরিয়ে হাই স্কুলে উঠতে না উঠতে হাতে উঠে যাচ্ছে নেশা দ্রব্য, যার কারণে ঠিক ভুলের জ্ঞান হারিয়ে ফেলছে ছোট বড় সকলেই। মানছে না অভিভাবকের বারণ ।এই মারাত্মক ঘটনার সাক্ষী থাকলো করণদিঘী । এলাকার হাই মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র বছর চোদ্দের সাইফুদ্দিন তাকে ধূমপানে বাধা দিলে আত্মঘাতী হয় সে এমনটাই জানানো হলো পরিবারের পক্ষ থেকে।

পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গত পরশু নিজের ঘরে বসে পড়ার ফাঁকে ফাঁকে ধূমপান করছিল সাইফুদ্দিন। সেই সময় তার মা ধূমপান করতে দেখে ফেলায় বকাঝকা করা হয় তাকে। এরপরে তার মা নামাজ পড়তে গেলে বাড়ি ফাঁকা থাকায় তার ঘরে গলায় ফাঁস লাগায় সাইফুদ্দিন। এরপরে তড়িঘড়ি তাকে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে দুদিন হাসপাতালে চিকিৎসা চলার পরে গতকাল রাত্রি সাড়ে দশটা নাগাদ মৃত্যু হয় সইফুদ্দিনের। বর্তমানে মৃতদেহটি মেডিকেল কলেজের ময়না তদন্তের জন্য নিয়ে আসা হয়েছে।

9