তিন দিন ধর্নার পর অবশেষে বিয়ে হলো সদ্য প্রাথমিক স্কুলে চাকরি হারানো কোচবিহারের যুবতীর

ওয়েবডেস্কঃ

চাকরি হারালেও অবশেষে স্বামীর সংসার পেলেন সদ্য চাকরি হারানো কোচবিহারের প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষিকা।টেট মামলায় চাকরি হারানোর পরেই বেপাত্তা হয়ে যায় প্রেমিক।এরপর নিশিগঞ্জে কলেজের অতিথি শিক্ষকের বাড়িতে গিয়ে বিয়ের দাবিতে ধর্নায় বসেন ঐ যুবতী। তিন দিন লাগাতার ধর্নার পর অবশেষে বৃহস্পতিবার বিকেলে সম্পন্ন হয় বিয়ে। আইনজীবীর উপস্থিতিতে পাত্রের বাড়িতে রেজিস্ট্রি ম্যারেজের কাগজে স্বাক্ষর করলেন পাত্র-পাত্রী।

বলে রাখা ভালো, সোমবার হাইকোর্টের নির্দেশে কোচবিহার জেলার ৩২ জন প্রাথমিক শিক্ষক শিক্ষিকা চাকরি থেকে বরখাস্ত হয়।সেই তালিকায় নাম ছিল ঐ যুবতীর। অভিযোগ উঠেছিল, চাকরি খোয়াতেই প্রেমের সম্পর্ক অস্বীকার প্রেমিক।

55