Categories
অন্য খবর

কলকাতা-বাংলাদেশ উপহাইকমিশনের প্রাঙ্গনে উদযাপিত হল বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস

ওয়েবডেস্কঃ
কলকাতাস্থ বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশন প্রাঙ্গণে বসানো হল বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আবক্ষ ভাস্কর্য। সোমবার ভার্চুয়াল মাধ্যমে এই ভাস্কর্য উদ্বোধন করেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ.কে.আব্দুল মোমেন এমপি।
সোমবার ১০ জানুয়ারী বাংলাদেশের মহান স্থপতি বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে কলকাতার বাংলাদেশ মিশনে নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। তারই অংশ হিসাবে এদিন বঙ্গবন্ধুর আবক্ষ ভাস্কর্যটির উদ্বোধন হয়। এদিনের এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপ-হাইকমিশনার তৌফিক হাসান, প্রথম সচিব (রাজনৈতিক-১) শামীমা ইয়াসমীন স্মৃতি, কাউন্সিলর (শিক্ষা ও ক্রীড়া) রিয়াজুল ইসলাম, প্রথম সচিব (বাণিজ্যিক) মো: শামসুল আরিফ সহ অন্যরা। উপস্থিত সকলেই বঙ্গবন্ধুর আবক্ষ ভাস্কর্যে পুস্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধার্ঘ্য জানান।
বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যটি বসানো হয়েছে মিশনের দক্ষিণ প্রান্তের প্রবেশ দ্বারের সম্মুখে। সম্পূর্ণ ব্রোঞ্জের তৈরি এই ভাস্কর্যটি নির্মাণ করেছেন পশ্চিমবঙ্গের কৃষ্ণনগরের বিশিষ্ট ভাস্কর্য শিল্পী সুবীর পাল। এটি নির্মাণ করতে প্রায় ছয় মাস সময় লাগে।
এর পাশাপাশি এদিনের অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের মাননীয় রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত বাণীপাঠ করা হয়। বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে নির্মিত তথ্যচিত্র প্রদর্শন ও আলোচনা অনুষ্ঠানেরও আয়োজন করা হয়। এই আলোচনায় ভার্চুয়ালি অংশ নেবেন মুক্তিযুদ্ধ মৈত্রী সম্মাননা প্রাপ্ত বিশিষ্ট ভারতীয় সাংবাদিক পঙ্কজ সাহা এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা, গবেষক, লেখক মেজর (অব) এ. এস. এম. শামসুল আরেফীন।
উপ-হাইকমিশনার তৌফিক হাসান জানান ‘কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশন হল বহির্বিশ্বে স্থাপিত বাংলাদেশের প্রথম মিশন। আমাদের ইচ্ছা ছিল যে এই মিশন প্রাঙ্গণে জাতির পিতার একটি আবক্ষ ভাস্কর্যের নির্মাণ করা। সেক্ষেত্রে মুজিব বর্ষের এই বিশেষ দিনে আমরা এটির শুভ উদ্বোধন করলাম।’
তিনি আরও জানান ‘কলকাতার উপহাইকমিশন প্রাঙ্গণ ছাড়াও কলকাতার বেকার হোস্টেলেও বঙ্গবন্ধুর অনুরূপ একটি ভাস্কর্য আছে। কিন্তু সেটি একটি ছাত্রাবাসের ভিতরে হওয়ায় সাধারণের প্রবেশাধিকারে কিছু বিধিনিষেধ আছে। তাই সর্বসাধারণ ও গণ্যমাণ্য ব্যক্তিদের দর্শণ বা শ্রদ্ধা জানানোর জন্য পৃথক স্থানে বঙ্গবন্ধুর এই ভাস্কর্য নির্মাণ করা হল।’

25

Leave a Reply Cancel reply