Categories
রাজনীতি রাজ্য

বাম ছাত্রযুবদের SSC ভবন অভিযানে ধুন্ধুমার কান্ড: পুলিশি হেনস্থার শিকার মীনাক্ষী

ওয়েবডেস্ক: এসএসসি-র (SSC) গ্রুপ ডি কর্মী নিয়োগে দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযানে নেমে পুলিশি জুলুমের মুখে পড়লেন বাম ছাত্র, যুবরা। এসএসসি ভবনের সামনে দু’পক্ষের সংঘর্ষে ব্যাপক উত্তেজনা। ভবনে প্রবেশের মুখে তাঁদের আটকায় পুলিশ। ব্যারিকেড ভেঙে বিক্ষোভকারীরা এগোতে চাইলে শুরু হয় ধস্তাধস্তি। রাস্তার মাঝেই অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করেন DYFI নেত্রী মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়, নেতা সৃজন ভট্টাচার্য। পরিস্থিতি ক্রমশ উত্তপ্ত হয়ে উঠলে  তাঁদের গ্রেপ্তার করে বিধাননগর পূর্ব থানার পুলিশ। তাঁদের পুলিশ ভ্যানে তুলে থানায় পাঠানো হয়।

রাজ্য SSC’র শিক্ষক বা গ্রুপ ডি কর্মী নিয়োগে একাধিক অস্বচ্ছতার অভিযোগে প্রতিবাদে নেমেছিল বামপন্থী ছাত্র ও যুব সংগঠন SFI, DYFI. ‘এসএসসি-র ঘুঘুর বাসা ভাঙতে’ তাঁদের অভিযানের ডাক দেওয়া হয়েছিল তাদের তরফে। বুধবার দুপুর নাগাদ মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়, সৃজন ভট্টাচার্যরা করুণাময়ী থেকে এসএসসি ভবন পর্যন্ত মিছিল শুরু হয়। প্রচুর কর্মী, সদস্যরা জমায়েত করেছিলেন মিছিলে।

মিছিল এসএসসি ভবন পৌঁছনোর আগেই পুলিশ বাধা দেয়। বাম ছাত্র, যুব সংগঠনের সদস্যদের বক্তব্য, এসএসসি ভবনে তাঁরা স্মারকলিপি জমা দিতে চান। নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ তুলে তাঁরা দাবি করেন, প্রশাসনকে ক্ষমা চাইতে হবে। এসএসসি ভবনের সামনে পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের হাতাহাতি, সংঘর্ষ শুরু হয়। তাতে অসুস্থ হয়ে পড়েন এক বাম যুব সদস্য।

এদিন সৃজন, মীনাক্ষীদের উপরও পুলিশ লাঠিচার্জ করে বলে অভিযোগ। ডিওয়াইএফআইয়ের রাজ্য সম্পাদককে টানতে টানতে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ ওঠে মহিলা পুলিশদের বিরুদ্ধে। 

এসবের পরও অবশ্য নিজেদের আন্দোলন থেকে একচুলও নড়েনি এসএফআই, ডিওয়াইএফআই নেতৃত্ব। তাঁদের দাবি, কমিশনের অফিসে ঢুকে নিজেদের দাবি প্রকাশ না করা পর্যন্ত তাঁরা থামবেন না। সবমিলিয়ে, সন্ধে পর্যন্ত সল্টলেকের এসএসসি ভবন চত্বর উত্তপ্ত ছিল।

SSC দপ্তরে শান্তিপূর্ণ মিছিলের ওপর পুলিশের লাঠিচার্জের প্রতিবাদে   আগামীকাল ২৫ শে নভেম্বর গোটা রাজ্য জুড়ে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করতে DYFI

107

Leave a Reply