মালদা মেডিকেলে প্রাণ হারালো আরও এক শিশুর!আতঙ্কের পারদ চড়ছে মেদিনীপুরেও

ওয়েবডেস্কঃ মঙ্গলবার রাতে মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আরও এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। একে করোনা তার ওপর নতুন উপদ্রপ হল ম্যালেরিয়া, ডেঙ্গি। রায়গঞ্জ গভর্ণমেন্ট মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে এই দুই রোগের উপসর্গ নিয়ে ভর্তি হওয়া রোগীর সংখ্যা ক্রমশই বাড়ছে। যা নতুন করে মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে স্বাস্থ্য দফতরের।

বুধবার সকাল পর্যন্ত রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ৬ জন ম্যালেরিয়া ও ৩ জন ডেঙ্গির উপসর্গ নিয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। ইটাহার, কালিয়াগঞ্জ, হেমতাবাদেও ম্যালেরিয়া ও ডেঙ্গিতে আক্রান্তের খবর পাওয়া যাচ্ছে। ইসলামপুরেও অনেকে এই জাতীয় উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। সাথেই ভিড় বাড়ছে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালেও।

মালদার MSVP ডা. পুরঞ্জয় সাহা জানান , “জ্বরের উপসর্গ নিয়ে ১২৭ শিশু চিকিৎসাধীন রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে জ্বরের উপসর্গ নিয়ে ভর্তি হয়েছে ২৬ জন। ছুটি দেওয়া হয়েছে ১৫ জনকে। ৩ শিশুর অবস্থা আশঙ্কাজনক। তবে পরিস্থিতি আগের থেকে নিয়ন্ত্রণে বলেই দাবি MSVP –র।”

আবার মেদিনীপুর মেডিকেল কলেজে ৬৫টি শয্যা বিশিষ্ট শিশু ওয়ার্ডে ৯৩ জন শিশু ভর্তি রয়েছে। এছাড়া ১০৪টি শয্যা বিশিষ্ট এসএনসিইউ-তে মঙ্গলবার পর্যন্ত ৮৪টি শিশু চিকিৎসাধীন ছিল। প্রত্যেকের একই উপসর্গ- জ্বর, সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্ট। যদিও এই সময়ে শিশুদের সর্দি-কাশি, জ্বর সাধারণ ব্যাপার বলে দাবি মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের অধ্যক্ষ পঞ্চানন কুণ্ডুর।

এখনও পর্যন্ত কোনও শিশুর কোভিড ধরা পড়েনি এবং মৃত্যু হয়নি। হাসপাতালে আসা শিশুদের সমস্ত রকম ইনফ্লুয়েঞ্জা ঘটিত রোগের পরীক্ষা করে রোগ শনাক্ত করে চিকিৎসা করা হচ্ছে। বলে জানাচ্ছেন প্রতিটি হাসপাতালের চিকিৎসকেরা।

330