Categories
রায়গঞ্জ

আচমকা বন্ধ কোভিড এন্টিজেন টেস্ট, আতঙ্কে রোগী থেকে সাধারণ রায়গঞ্জবাসী।

ওয়েবডেস্কঃ

করোনার দ্বিতীয় ঢেউ চলাকালীন সময় থেকেই রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে রোগী ভর্তির সময়ে RAT বা rapid antigen test এর মাধ্যমে প্রাথমিকভাবে রোগীদের করোনা পজিটিভ বা নেগেটিভ পরীক্ষা করে সেই অনুযায়ী চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছিলো। এর ফলে চটজলদি রোগীর থেকে সংক্রমণ যেমন ছড়ানোর আশঙ্কা অনেক কমেছিলো তেমনি করোনা চিকিৎসার ক্ষেত্রেও প্রচুর সুবিধা হয়েছিলো বলে আপামর জেলাবাসী ও সামাজিক কর্মীদের বক্তব্য। তবে আচমকা গত তিনদিন থেকে জরুরি ভিত্তিতে এই পরীক্ষা বন্ধ হয়ে যাবার ফলে আতংক ছড়িয়েছে সংশ্লিষ্ট সকল মহলে। এর জন্য একদিকে যেমন অসুস্থ লোকেদের পরিবারের মধ্যে তাঁদের রোগীর হাসপাতাল থেকে সংক্রমিত হবার আশঙ্কা ঘনীভূত হচ্ছে অন্যদিকে rtpcr টেস্ট সময়সাপেক্ষ হওয়ার দরুন পরিস্থিতি জটিল হওয়ার ভয় ও বাড়ছে সাধারণ মানুষের মধ্যে। এ বিষয়ে রায়গঞ্জের সমাজকর্মী কৌশিক ভট্রাচার্জ সহ আরো অনেকে তাঁদের আশঙ্কা ব্যক্ত করেছেন এবং জরুরি ভিত্তিতে এই পরিষেবা পুনরায় চালুর দাবি জানিয়েছেন। অন্যদিকে মেডিক্যাল কলেজের দায়িত্বপ্রাপ্ত আধিকারিক তথা ডাঃ বিদ্যুৎ ব্যানার্জি জানিয়েছেন চুক্তিভিত্তিক প্রায় ৩০ জন স্বাস্থ্যকর্মীর চুক্তির মেয়াদ শেষ এবং রিনিউয়াল না হওয়ার দরুন কর্মীসংকট সৃষ্টি হওয়ায় এই পরিষেবা বন্ধ রাখতে বাধ্য হয়েছেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। তবে ভবিষ্যতে ওই স্বাস্থ্যকর্মীদের পুনরায় নিযুক্তি হলে আবার এই পরিষেবা চালু হবারও আশ্বাস দেন উনি।

71

Leave a Reply