Categories
করোনা

‘আগস্টে ভারতে মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়াতে পারে দশ লক্ষ! করোনায় জাতীয় বিপর্যয়ের জন্য দায়ি থাকবে মোদী সরকার’ – ল্যানসেট।

ওয়েবডেস্কঃ ‘করোনায় জাতীয় বিপর্যয়ের জন্য দায়ি থাকবে মোদী সরকার।’ করোনা মোকাবিলায় ব্যর্থতার জন্য মোদী সরকারের তীব্র সমালোচনা করলো আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন চিকিৎসা বিজ্ঞান পত্রিকা ল্যানসেট। ভারতে করোনার গ্রাফ উর্ধ্বমুখী হচ্ছে প্রত্যেকদিন। মৃত্যুর সংখ্যা ভাবাচ্ছে আন্তর্জাতিক স্তরের বিশেষজ্ঞদের। আর এই করোনা সংক্রমণের মধ্যে নরেন্দ্র মোদী নিজের সমালোচনার পোস্ট সোশ্যাল মিডিয়া থেকে মুছতে ব্যস্ত ছিলেন, এমই সমালোচনা করল আন্তর্জাতিক পত্রিকা ‘দ্য ল্যান্সেট’

করোনা মোকাবিলায় সম্পূর্ন ব্যর্থ মোদী সরকার। কোথাও অক্সিজেনের হাহাকার তো কোথাও মিলছেনা বেড। সম্পূর্ণ ভেঙে পড়েছে দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থা। খবরের শিরোনামে উঠে এসেছে সেই নগ্ন চিত্র। রাজ্যের শ্মশান থেকে কবর স্থান গুলোয় দেখা  লাশের স্তূপ।এই পরিস্থিতিতে  ল্যানসেটের রিপোর্টে উঠে এসেছে নিজেদের সমালোচনা ঢাকতেই বেশি ব্যস্ত মোদী সরকার অথচ সাধারণ মানুষকে চিকিৎসা দিতে ততটাই ব্যর্থ তারা। 

ল্যানসেটের সম্পাদকীয়তে দ্য ইনস্টিটিউট ফর হেলথ মেট্রিক্স এন্ড ইভ্যালুয়েশনের তথ্য তুলে ধরে সতর্ক করা হয়েছে যে, আগামী ১ আগস্ট পর্যন্ত দেশে করোনায় মৃত্যু ১০ লক্ষ হয়ে যাবে। আর সেটা যদি হয় তাহলে এই জাতীয় বিপর্যয়ের জন্য মোদী সরকারই দায়ী হবে। আগাম হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও সরকার সুপার স্প্রেডার জমায়েত, ধর্মীয় উৎসবে লাখ লাখ পুণ্যার্থীর অংশগ্রহণ, বিরাট নির্বাচনী সভাকে অনুমতি দিয়েছে। করোনা মোকাবিলায় পুরোপুরি ব্যর্থ হয়েছে সরকার।

অন্যদিকে ইন্ডিয়া টুডের ১৭ই মে ২০২১ সংখ্যায় পত্রিকার প্রাক্তন এডিটর ইন চিফ অরুন পুরি তার নিবন্ধে ভারতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় ব্যর্থ জাতীয় ও রাজ্য সরকার গুলিকে তুলোধুনা করেছে। মোদী সরকারের সমালোচনা করে তিনি লিখেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী মোদী এবং তাঁর দল ২০১৯ সালের মে মাসে পুনর্নির্বাচিত হয়েছিলেন কারণ লোকেরা এখনও বিশ্বাস করেছিল যে তিনি একজন কর্মক্ষম এবং তিনি বারবার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন সুশাসন প্রদান করবেন। এটা অত্যন্ত নির্মমভাবে সত্য যে আজ দেশের নাগরিকেরা ঠিক করে শ্বাস নিতে পারছে না এবং তাদের মাছিদের মতো মারা যাওয়ার প্রত্যক্ষ করতে হচ্ছে : হাসপাতালের বিছানা, ওষুধ, অক্সিজেন সিলিন্ডার, অ্যাম্বুলেন্স, এমনকি মৃতদের সমাধিস্থানের স্থানের অভাবে। অনেকের দৃষ্টিতে, এই রাজ্যটি নাগরিকদের তাদের সবচেয়ে মৌলিক অধিকার, জীবনের অধিকারকে অস্বীকার করছে!’

148

Leave a Reply