Categories
জেলার খবর

পথ দুর্ঘটনায় মৃত ২

ওয়েব ডেস্ক ৭,২০২১ : পথ দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল দাদু নাতনির। ঘটনাটি ঘটেছেশনিবার রাতে কালিয়াচক থানার জালালপুর স্ট্যান্ড ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের উপর।মৃত দাদুর নাম হরি বলা সাহা বয়স ৫১ বছর ও নাতনির নাম ববি সাহা বয়স ২৬ বছর। পুলিশ ইতিমধ্যে ঘাতক ডাম্পারটিকে আটক করলেও চালক পলাতক। পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায় নাতনি ববি সাহা দাদুর বাড়িতে এদিন বেড়াতে এসেছিল। দাদু ও নাতনি জালালপুর স্ট্যান্ড রাস্তা পারাপারের জন্য নিজের সাইডে দাঁড়িয়ে ছিল।এদিকে কালিয়াচক থেকে মালদার দিকে দ্রুত গতিতে একটি ডাম্পার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রং সাইডে গিয়ে দুজনকে ধাক্কা মারে। ঘটনাস্থলেই ববি সাহার মৃত্যু হয়। এদিকে স্থানীয়রা হরিবোলা সাহাকে মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসলে কিছুক্ষণ চিকিৎসা চলার পর রবিবার ভোরে তারও মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যু ঘটে। রবিবার মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। এই ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে ওই পরিবারে।

রাখে হরি মারে কে। ভোররাতে রেললাইন পারাপার করতে যাওয়ার সময় চলন্ত ট্রেন দেখতে পেয়ে ঝাঁপ দিলেন এক বৃদ্ধা মহিলা। কালভার্টের নিচে লাফ মারলে ওই বৃদ্ধার মৃত্যু হয়। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার ভোররাতে ইংরেজবাজার শহরের রথবাড়ি রেল গেট সংলগ্ন এলাকায়।মালদা জিআরপি থানার পুলিশ মৃতদেহটিকে উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়না মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। মালদা জিআরপি সূত্রে জানা যায় মৃত ওই বৃদ্ধার নাম বাসন্তী সিংহ 66 বছর বয়স। তার বাড়ি হবিবপুর থানার আইহো রোতিরাম পাড়া এলাকায়। ওই বৃদ্ধা অনুষ্ঠান বাড়িতে রান্নার কাজ করতো। রবিবার ভোররাতে এলাকার 7 জন মহিলা একসাথে তারা রথবাড়ি রেল গেট সংলগ্ন ম্যাক্সি স্ট্যান্ড থেকে ম্যাক্সিতে করে আড়াই ডাঙ্গা যাওয়ার উদ্দেশ্যে যাচ্ছিল। সেসময় রথবাড়ি রেলগেট রেললাইন পারাপার করার সময় দেখা যায় ট্রেন চলে আসছে অন্যান্য মহিলারা রেললাইন পারাপার হয়ে গেলেও বাসন্তী সিংহ ট্রেন দেখে আচমকা কালভার্টে নিচে লাফ মেরে দেয়।
তার পায়ে চোট লাগে স্থানীয় লোকরা তৎপরতায় তাকে কালভার্টের নিচ থেকে উঠিয়ে মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসতে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে জানায়।

34

Leave a Reply