Categories
প্রথম পাতা

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের লড়াইয়ে থাকতে মোতেরায় দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচে হারা চলবে না ভারতের!

দলের সামনে কঠিন চ্যালেঞ্জ। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠতে হলে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দিনরাতের টেস্ট কোনওভাবেই হারা চলবে না। পরবর্তী দুই ম্যাচের মধ্যে একটি অন্তত জিততে হবে। অপরটিও হারা চলবে না। দলের যখন এই অবস্থা, তখন অধিনায়ক কোহলির সামনে আবার নয়া রেকর্ডের হাতছানি। আহমেদাবাদের দিনরাতের টেস্টেই ভারতীয় অধিনায়ক হিসেবে ঘরের মাঠে সবচেয়ে বেশি টেস্ট জয়ের নজির গড়ে ফেলতে পারেন বিরাট। আপাতত মহেন্দ্র সিং ধোনির সঙ্গে যৌথভাবে এই রেকর্ডের মালিক ভারত অধিনায়ক। দুজনেই জিতেছেন ২১টি করে ম্যাচ। আহমেদাবাদে বিরাটের কাছে সুযোগ থাকছে ধোনিকে টপকে যাওয়ার বিশেষজ্ঞরাও এই ম্যাচের আগে এগিয়ে রাখছে ভারতকে। সিরিজে পিছিয়ে পড়ে ফিরে আসার জন্য নয়। আহমেদাবাদে শুরু হতে চলা গোলাপি যুদ্ধে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ভারত এগিয়ে শুরু করবে অন্য কারণে। কী কারণটা? ব্যাখ্যা দিচ্ছেন ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটার গৌতম গম্ভীর । বলছেন, “ইংল্যান্ড ব্যাটিংকে চাপে ফেলতে ভারতের হাতে যা অস্ত্র আছে, তা যথেষ্ট। টেস্ট ম্যাচ জিততে গেলে আলাদা পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামতে হবে। প্রথম একাদশ বেছে নেওয়ার ক্ষেত্রে ম্যানেজমেন্টের ভাবনা সঠিক হতে হবে। এসব ঠিক হলে ইংল্যান্ড মাথা তুলতে পারবে না।”
দ্বিতীয় টেস্টে জশপ্রীত বুমরাহকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছিল। দু’টি টেস্টেই ভারতে খেলেছিল দুই পেসার নিয়ে। কিন্তু মোটেরার নতুন উইকেটে গম্ভীর চান ভারত তিন পেসারে খেলুক। সঙ্গে থাকুক দুই স্পিনার। এই তিন পেসার খুঁজতে গিয়ে গোলমাল হয়ে যাচ্ছে। সোমবার ভারতীয় দলে নিয়ে আসা হয়েছে উমেশ যাদবকে। হঠাৎ করে উমেশ কেন? তিনি কি তা হলে তৃতীয় টেস্টে খেলবেন? এমন ভাবনা উড়িয়ে দিয়েছেন গম্ভীর। টিম ম্যানেজমেন্টের মাথায় উমেশ নিয়ে যদি কোনও ভাবনা থেকেও থাকে, তা যেন এখনই ছেঁটে ফেলা হয়। গম্ভীর বলছেন, “জানি না, কেন উমেশকে দলে আনা হয়েছে? তিন পেসার খেলানো হলে আমার ভোট কিছুতেই উমেশের দিকে থাকবে না। ওকে কেন খেলানো হবে? সেঞ্চুরি টেস্ট খেলতে নামছে ইশান্ত। ওকে বাইরে রাখার কথা উঠবে না। ওর সঙ্গে থাকা উচিত বুমরাহর। তৃতীয় পেসার হিসাবে আমি অবশ্যই সিরাজকে চাইব। অস্ট্রেলিয়ার মাঠে পেস সহায়ক উইকেটে সিরাজ ভাল করেছে। চেন্নাইয়ে দ্বিতীয় টেস্টে যতটুকু বল করার সুযোগ পেয়েছে, তা দেখে আমার খারাপ লাগেনি। এখন ছন্দে আছে সিরাজ। দলের বাইরে রেখে কেন ওর ছন্দ নষ্ট করা হবে। এই তিন পেসারের সঙ্গে থাকবে দুই স্পিনার অশ্বিন ও অক্ষর। এই পাঁচ বোলার ইংল্যান্ডের সামনে রাখলে রুটরা সহজে মাথা তুলে দাঁড়াতে পারবে না। আমার তো মনে হয়, এর বাইরে যাওয়া উচিত নয় ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্টের।”

34

Leave a Reply