বিয়ের পরে দিন কেটে যাচ্ছে অথচ কোথাও যাওয়া হচ্ছে না দেখে তাঁরা সিদ্ধান্ত নেন একটা ফোটোশ্যুট করবেন। ডেস্টিনেশান হিসেবে তারা বহেছে নেন ইদ্দুকিস চা বাগান। অখিল কার্তিকেয়ন নামক এক বন্ধু ফোটোগ্রাফারকে ডেকে নেন তাঁরা। সেখানেই নানা অন্তরঙ্গ মুহুর্তের ছবি উঠতে থাকে।একে অপরকে সাদা চাদররে ভিতর বাহুডো়রে জড়ান ওঁরা। কখনও দেখা গিয়েছে একে অন্যকে ছুঁতে এগিয়ে আসছেন তীব্র আকুতি নিয়ে।

‘শ্লীল-অশ্লীল’ বিতর্ক ছড়িয়ে পরলেও তাঁকে পাত্তা দিতে রাজি নন লক্ষ্মী। তাঁর কথায়, “আমি প্রায়ই অফসোল্ডার জামা পরি। কে কী পরবে তা তাঁর অভিরুচি”। প্রণয়ের এই ভঙ্গিই পছন্দস নয় অনেক নাকউঁচু নেটাগরিকের। নানাবিধ প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন তাঁরা। “কাপড় কই?”আসছে এমন প্রশ্নও।

35