৯/১০/২০২০,ওয়েবডেস্কঃ ৮৩ বছরের বৃদ্ধ ইহুদি পুরোহিতকে গ্রেপ্তার করলো এনআইএ।গত বৃহস্পতিবার পুরোহিত স্ট্যান স্বামীকে তার রাঁচীর বাড়ি থেকে গ্রেফতার করেছে জাতীয় নিরাপত্তা এজেন্সি, এনআইএ। এনআইএ-এর পক্ষ থেকে স্ট্যান স্বামিকে ২০১৮ সালের ভীমা-কোরেগাঁও ঘটনার অভিযুক্ত হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

স্ট্যান স্বামীকে রাঁচীতে জেসুইটদের দ্বারা পরিচালিত একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ‘বাগাইচা’র অফিস থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানিয়েছেন স্ট্যান স্বামীর ‘বাগাইচা’র সহকর্মীরা। আরও ,এনআইএ-র আধিকারিক কোন ওয়ারেন্টও দেখাননি বলেও অভিযোগ করে স্বামীর সহকর্মীরা জানান যে ,এনআইএ-র আধিকারিকরা অত্যন্ত ঔদ্ধ্যত্বপূর্ণ ও অভব্য ব্যবহার করে স্বামীকে জানান যে, আপনি ভিমা-কোরেগাঁও মামলায় অভিযুক্ত।আপনার সঙ্গে আমাদের একজন অফিসার এই মামলা সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চান তাই আপনাকে রাঁচিতে যেতে হবে।তারপরেই এনআইএ স্বামীকে নিয়ে কোন অজ্ঞাত স্থানে চলে যায় বলে জানিয়েছেন স্বামীর সহকর্মীরা।

সহকর্মীরা আরও জানিয়েছেন যে, ইতিপূর্বেই দু’বার স্ট্যান স্বামীকে ভীমা-কোরেগাঁও ঘটনার সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে এনআইএ।

কদিন আগেই স্বামী জানিয়েছিলেন যে তাঁকে ইতিপূর্বেই ৫দিনে প্রায় ১৫ঘন্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেছে এনআইএ। ২৭শে জুলাই থেকে ৩০শে জুলাই এবং তারপর আবার ৬ই আগস্টও তাঁর সাথে কথা হয়েছে এনআইএ-এর। স্বামী আরও জানান যে, আমার কম্পিউটার থেকে বিভিন্ন তথ্য নিয়ে আমার সাথে মাওবাদীদের যোগাযোগ প্রতিষ্ঠা করার চেষ্টা করে এনআইএ।আমি তাদের স্পষ্ট জানিয়েছি যে এই সব তথ্যের সাথে আমার কোন সংযোগ নেই। আমার কম্পিউটারে কেউ এগুলো ঢুকিয়েছে।

ভিমা-কোরেগাঁও মামলার অন্যতম অভিযুক্ত বলে উল্লেখ করে এর আগেও ২৮শে আগষ্ট,২০১৮ ও ১২ই জুন,২০১৯ তারিখে এনআইএ তাঁর বাড়িতে তল্লাশি চালায় বলে কদিন আগেই জানিয়েছিলেন স্ট্যান স্বামী। তিনি জানিয়েছিলেন যে, “এনআইএ জোড় করেই প্রমাণ করতে চাইছিলো যে, ১)আমার সাথে মাওবাদীদের যোগাযোগ আছে, এবং ২) আমার সাথে ‘বাগাইচা’র সাথেও মাওবাদী যোগাযোগ আছে। আমি অত্যন্ত দৃঢ়ভাবে এই অভিযোগ নস্যাৎ করেছি। “

স্বামী আরও জানিয়েছিলেন যে,”এরপর আমাকে এনআইএ সমন পাঠায় কিন্তু আমি স্পষ্টই জানিয়েছিলাম যে, ১)আমাকে ইতিমধ্যেই ১৫ঘন্টা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। এই বিষয় নিয়ে আমার আর কিছুই বলার নেইমার। ২) আমার পক্ষে এই মূহুর্তে কোথাও যাওয়া সম্ভব নয় কারণ আমার বয়েস এখন ৮৩। তাছাড়া করোনা পরিস্থিতিতে লকডাউন চলাকালীন ঝাড়খণ্ড সরকার ৬৫ বছরের উর্দ্ধে যেকোন মানুষের বাইরে বেরোন নিষিদ্ধ করেছে। ৩) তবুও যদি কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা আমার সাথে কথা বলতে চায় সেক্ষেত্রে আমি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কথা বলতে রাজি আছি। তবে আমাকে মুম্বাই নিয়ে যেতে চাইলেও আমি একই কথা বলবো। কারন বয়েস জনিত কারনে আমার পক্ষে চলা ফেরা করা সম্ভব নয়। “

তবে বর্ষিয়ান সমাজকর্মী স্ট্যান স্বামীর কোন আর্জিই না শুনে গতকাল রাতে তাঁকে তাঁর রাঁচি বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে গেছে এনআইএ।

এই ঘটনা ঐতিহাসিক রামচন্দ্র গুহ সহ দেশের বিশিষ্ট জনেরা ট্যুইট করেও জানিয়েছেন।

23