৫/১০/২০২০,ওয়েবডেস্কঃ

২০২১ এ বিধানসভার ভোট বাংলায়। আর তার আগে আবার ‘গোর্খাল্যান্ড’ ইস্যু উস্কে দিল কেন্দ্রীয় সরকার। এ সংক্রান্ত বিষয়ে আলোচনা করতে বৈঠক ডাকলো কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিসান রেড্ডি। আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে, পশ্চিমবঙ্গের স্বরাষ্ট্রসচিব, দার্জিলিঙের জেলাশাসক, জিটিএ-র প্রধান সচিব ও গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার সভাপতিকে। তৃণমূলের অভিযোগ, বাংলা ভাগের ষড়যন্ত্র করছে বিজেপি । এই অভিযোগ খারিজ করেছেন বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু। তাঁর দাবি, রাজনৈতিকভাবে দার্জিলিঙের স্থায়ী সমাধান চায় কেন্দ্র।
   
কেন্দ্রের চিঠিতে জ্বলজ্বল করছে ‘গোর্খাল্যান্ড’ শব্দটি। যা নিয়ে ইতিমধ্যেই আপত্তি তুলেছে তৃণমূল সহ অনেকেই।তৃনমূলের বক্তব্য, গোর্খাল্যান্ড শব্দের ব্যবহার করে কী বোঝাতে চাইছে কেন্দ্র? তবে কি বাংলা ভাগ চায় বিজেপি! এটা হতে দেওয়া যাবে না। ৭ অক্টোবর, বুধবার বৈঠক ডাকা হয়েছে। সভাপতিত্বে দায়িত্ব পালন করবে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিসান রেড্ডি। ওই বৈঠকে ডাক পেয়েছেন রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিব, দার্জিলিঙের জেলাশাসক, জিটিএ-র প্রধান সচিব ও গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার সভাপতি। মোর্চার রোশন গিরি জানিয়েছেন, বৈঠকে প্রতিনিধি পাঠাবেন তাঁরা। 

তবে চিঠি তে গোর্খাল্যান্ড শব্দটি দেখে সন্দেহ করছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল সহ সাধারন মানুষ, তবে কি বাংলা ভাগ হবে এবার

33