২৯/৮/২০২০,ওয়েবডেস্কঃ কিছুদিন আগেই মার্কিনপ্রবাসী তরুণ ভারতীয় বংশোদ্ভূত ডাক্তার অঙ্কিত ভরত প্রশংসিত হয়েছিলো নেট দুনিয়ে তার সাহসী পদক্ষেপের জন্য। করোনা সংকটের এই সময়ে নামজাদা চিকিত্‍‌সকেরা যা পারে নাই অঙ্কিত ভরত তা করে দেখিয়েছিলো। তাঁর নেতৃত্বে একটি চিকিত্‍‌সক দল সফল ভাবে শিকাগোর বছর ২০-র এক তরুণীর শরীরে সফল ভাবে দু’টি ফুসফুস একসঙ্গে প্রতিস্থাপন করে। চিকিত্‍‌সার পরিভাষায় যাকে বলা হয়,বাইল্যাটেরাল লাং ট্রান্সপ্লান্ট   ।করোনার কামড়ে ওই তরুণীর ফুসফুস এতটাই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল, অবিলম্বে প্রতিস্থাপন না-করলে প্রাণহানির আশঙ্কা ছিল। সেই অবস্থায় চ্যালেঞ্জটা নিয়েছিলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত ওই ডাক্তার। আমেরিকার চিকিৎসাবিজ্ঞানের ইতিহাসে এমন অস্ত্রোপচার বিরল।ঘটনাটি এবছর জুনের।

এবার ঠিক দু-মাসের ব্যবধানে ফুসফুসের সেই জটিল অস্ত্রোপচার সফল ভাবে সম্পন্ন হল ভারতে। চেন্নাইয়ে যাঁর শরীরে দু’টি ফুসফুস একসঙ্গে প্রতিস্থাপন করা হল, তিনিও কোভিড রোগী। করোনাভাইরাসের সংক্রমণে মার্কিন ওই তরুণীর মতো তাঁরও ফুসফুস বিকল হয়ে গিয়েছিল।অপারেশন না করলে প্রানে বাঁচানো যেতো না। এই অতিমারির সময়ে এশিয়ায় আর কোথাও, আর কোনও হাসপাতালে, কোনও কোভিড রোগীর শরীরে ফুসফুসের এই জটিল অস্ত্রোপচার হয়নি। সেদিক থেকে এশিয়ার প্রথম দেশ হিসেবে কোভিড রোগীর শরীরে সফল অস্ত্রোপচার হলো ভারতে।

7