৩০শে সেপ্টেম্বরের মধ্যে কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে ফাইনাল ইয়ারের সব শেষ করতে হবে। সুপ্রিম কোর্টের এই আদেশের প্রেক্ষিতে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়ে দিলেন সেপ্টেম্বর মাসে রাজ্যে কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে কোনও পরীক্ষা হবে না। শুক্রবার তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবসে ভার্চুয়াল মাধ্যমে বক্তব্য রাখতে গিয়ে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ বিষয়ে অনলাইনে পরীক্ষার সম্ভাবনা খতিয়ে দেখতে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। তবে একইসঙ্গে শীর্ষ আদালত জানায়, অনিচ্ছুক রাজ্য চাইলে বিপর্যয় মোকাবিলা আইনের মাধ্যমে তা বাতিল করে পরবর্তী তারিখ ইউজিসি-কে জানাতে পারে। সেইমতোই করোনাকালে পড়ুয়াদের স্বস্তির খবর শোনান মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘পড়ুয়াদের বিরক্ত করব না আমরা। সেপ্টেম্বর মাসে রাজ্যে পরীক্ষা হবে না।’


এদিনের ভার্চুয়াল সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে জেইই-নিট সহ একাধিক বিষয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে আক্রমণ করেন তৃণমূল নেত্রী। তিনি বলেন, ‘সব পরীক্ষা নিয়ে দুশ্চিন্তা হচ্ছে। সবার আশঙ্কা, পরীক্ষা দিতে গিয়ে অসুস্থ না হয়ে যায়। বাড়ির লোকজনও চিন্তায়।’ তৃণমূল নেত্রীর অভিযোগ, ‘গায়ের জোরে পরীক্ষা নিয়ে সিদ্ধান্ত চাপাচ্ছে কেন্দ্র।’ ইউজিসি বিভিন্ন সময়ে ভিন্ন কথা বলেছে দাবি করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘২৯ এপ্রিল প্রথম চিঠি পাঠায় ইউজিসি। প্রথম চিঠিতে পরীক্ষার প্রয়োজন নেই জানায়। আবার জুলাইয়ে চিঠি দিয়ে জানাল পরীক্ষা নিতে হবে।’

করোনার সময়ে পরীক্ষা আয়োজনের প্রস্তুতি নিয়ে প্রশ্ন তুলে তৃণমূল সুপ্রিমো বলেন, ‘লকডাউন এখনও চলছে। ট্রেন পরিষেবা বন্ধ। এই পরিস্থিতিতে পড়ুয়াদের উপর চাপ কেন? ভিন জেলা থেকেও তো অনেকে এসে পরীক্ষা দেয়। সময়ে তাঁরা সেন্টারে পৌঁছতে না পারলে কী হবে? কে দায়ী থাকবে?’

23