৩/৮/২০২০,ওয়েবডেস্কঃ

রবিবার দুপুরেই করোনা আক্রান্ত হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। হাসপাতালে ভরতি আছেন তিনি। আর রাতে সেই মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরাপ্পা! তিনি নিজেই করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর জানিয়ে ট্যুইট করেছেন। ইয়েদুরাপ্পা লেখেন, ‘আমার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। আমি ভালো আছি। তবে, ডাক্তারের পরামর্শে সাবধানতা হিসেবে হাসপাতালে ভরতি হচ্ছি। আমি অনুরোধ করছি, সম্প্রতি যাঁরা আমার সংস্পর্শে এসেছেন, তাঁরা সকলেই সেলফ কোয়ারানটিনে যান।’
অমিত শাহের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবরে আগেই শোরগোল পড়েছিল গোটা দেশে। বিকেলের দিকে খবর আসে, উত্তরপ্রদেশ বিজেপির সভাপতি স্বতন্ত্র দেব সিংও আক্রান্ত হয়েছেন করোনায়। অপরদিকে, রবিবারই মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে উত্তরপ্রদেশের মন্ত্রী কমলা রানি বরুণের। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬২ বছর। ১৮ জুলাই তাঁর কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ আসার পর থেকে লখনউয়ের করোনা হাসপাতাল সঞ্জয় গান্ধী পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ইনস্টিটিউট অফ মেডিক্যাল সায়েন্সেসে ভরতি ছিলেন তিনি। রবিবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয়। সেই ঘটনার রেশ মিলতে না মিলতেই অমিত শাহের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর আসে। নিজেই ট্যুইট করে অমিত শাহ লেখেন, ‘কয়েকদিন ধরে আমার শরীরে করোনা উপসর্গ দেখা দিচ্ছিল। তাই করোনা পরীক্ষা করাই। আমার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। আমার শরীর সুস্থই আছে। চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে হাসপাতালে ভরতি হয়েছি।’ জানা গিয়েছে, নয়ডার বেদান্ত হাসপাতালে ভরতি হয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

এবার করোনায় আক্রান্ত হলেন কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রীও। বস্তুত কর্নাটকের করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই জটিল হয়ে উঠছে। রবিবার পর্যন্ত কর্নাটকে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ১ লক্ষ ২৪ হাজার। ইতোমধ্যে মৃত্যু হয়েছে ২৩১৪ জনের। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবরে আতঙ্ক আরও বাড়ল সেই রাজ্যে।

65