ওয়েব ডেস্ক জুলাই ১৪,২০২০: আগামীকালই নির্ধারিত হতে চলেছে রাজ্যের ১০ লক্ষ ১৫ হাজার ৮৮৮ জন মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের ভাগ্য। আজ পশ্চিমবঙ্গ মধ্যশিক্ষা পর্ষদ থেকে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানানো হয়েছে যে আগামীকাল ১৫ ই জুলাই দশটায় একটি ভার্চুয়াল সাংবাদিক সম্মেলন করে ২০২০ সালের মাধ্যমিক পরীক্ষার আনুষ্ঠানিক ফল প্রকাশ করবেন সংসদের পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গাঙ্গুলী।

পর্ষদের নিজস্ব ওয়েবসাইট ছাড়াও আরো ১৩টি ওয়েবসাইট থেকে জানা যাবে মাধ্যমিক পরীক্ষার ফলাফল। এছাড়া এসএমএসের মাধ্যমে পরীক্ষার্থীরা জানতে পারবেন তাদের ফলাফল । পরীক্ষার্থীরা চাইলে গুগল প্লে স্টোর থেকে পর্ষদের মাধ্যমিক রেজাল্ট 2000 অ্যাপটি ইন্সটল করেও ফলাফল জানতে পারবেন।

এবছর মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হয় ১৮ ফেব্রুয়ারি। শেষ হয় ২৭ ফেব্রুয়ারি। এবছর পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ১০ লক্ষ ১৫ হাজার ৮৮৮। যা গতবারের তুলনায় কম। এবার মাধ্যমিক পরীক্ষায় ছাত্রের সংখ্যা ৪ লক্ষ ৩৯ হাজার ৮৭৯। তবে পর্ষদ তরফে জানানো হয়েছে এ বছর ছাত্রীদের সংখ্যা বেশি।

মার্কশীট দেবার নিয়মেও কিছু পরিবর্তন নিয়ে চিন্তাভাবনা করছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। সূত্রের খবর, এবার মাধ্যমিকের মার্কশিট পরীক্ষার্থীর হাতে দেওয়া হবে না। বরং তা দেওয়া হবে অভিভাবককে। অ্যাডমিট কার্ড ও রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট সঙ্গে নিয়ে যেতে হবে। তবেই মিলবে মার্কশিট।

ফলাফল প্রকাশের কয়েকদিন পর অভিভাবকরা স্কুলের নির্দেশ মতো তা সংগ্রহ করতে পারবেন। এমনটাই ভাবছে মধ্য শিক্ষা পর্যদ। করোনা সংক্রমণের কথা ভেবে পরীক্ষার্থীদের আর স্কুলে টেনে আনতে নারাজ পর্যদ। অভিভাবকরা আসলে তাঁরা অনেকটাই সতর্ক থাকতে পারবেন।

প্রতিবারের মতো এবারেও পরীক্ষায় শুরুর আগে কড়াকড়ি ব্যবস্থা নিয়েছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। পরীক্ষার্থীদের পাশাপাশি শিক্ষক-শিক্ষিকাদের উপরও একাধিক বিধিনিষেধ আরোপ করে পর্ষদ। পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায় জানান, আগের বছর যে সমস্ত জায়গায় হোয়াটসঅ্যাপে মাধ্যমিকের প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়েছিল এবং ফাঁস হওয়ার প্রবণতা রয়েছে, পরীক্ষা চলাকালীন সেই সমস্ত জায়গায় বন্ধ থাকবে ইন্টারনেট পরিষেবা। ফলে রাজ্যের বেশকিছু জায়গায় বেলা ১২টা থেকে দুপুর ২টো পর্যন্ত নেট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সবমিলিয়ে রাজ্যের মোট ৪২টি ব্লকে পরীক্ষা চলাকালীন বন্ধ রাখা হয় ইন্টারনেট পরিষেবা।

49