ওয়েব ডেস্ক জুলাই ১১,২০২০: দলের লোকসভার এমপিদের নিয়ে বৈঠক করলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী। সংবাদসংস্থা টাইমস অফ ইন্ডিয়ার সূত্র মারফত জানা গেছে যে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে দলের সাংসদদের নিয়ে বৈঠক করেছেন কংগ্রেসের সভানেত্রী। এই সভায় মূলত দেশের বিভিন্ন প্রান্তের কংগ্রেস সাংসদদের কাছ থেকে তিনি তাদের অঞ্চলের এবং সারাদেশের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত তথ্য সংগ্রহ করেন এবং লকডাউন শেষ হয়ে আনলক শুরু হওয়ার সাথে সাথেই সারাদেশে যেভাবে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে সেই বিষয়ে বিশদ তথ্য সংগ্রহ করেছেন বলে জানা গেছে।

কিছুদিন আগেই ভারত রাশিয়াকে পেছনে ফেলে তৃতীয় স্থানে উঠে এসেছে আক্রান্তের সংখ্যার হিসেবে। সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে কংগ্রেস দল বিজেপি সরকারকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করার প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানা গেছে। সূত্র মারফত জানা জানা গেছে যে আগামী সংসদ অধিবেশনে কংগ্রেসের পক্ষ থেকে বিজেপি সরকারকে করোনাভাইরাস সংক্রান্ত বিষয়ক প্রশ্নে এবং পেট্রোল-ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধি ও সেইসঙ্গে গরীবদের একাউন্টে সরাসরি বেশি পরিমাণ টাকা দেয়ার মত দাবিতে তীব্র আক্রমণ করতে চলেছেন।

সেই কারণেই আজ বিজেপিকে আক্রমণের ক্ষেত্রে আরও বেশি প্রস্তুতি নেওয়ার জন্যই দলীয় সাংসদদের সঙ্গে সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী আলাপ-আলোচনা সারলেন বলে জানা গেছে।

এদিকে দীর্ঘদিন ধরে দেখা যাচ্ছে কংগ্রেস বিজেপিকে বিভিন্নভাবে কড়া ভাষায় তীব্র আক্রমণ করে আসছে দেশে করোনা ভাইরাসের আক্রমণের বাড়বাড়ন্ত ও মানুষের নানা দুর্ভোগজনক পরিস্থিতি মোকাবিলার ক্ষেত্রে।

বিজেপি সরকার সবদিক থেকেই ব্যর্থ হয়েছে বলে দাবি করেছেন তারা। কংগ্রেসের পক্ষ থেকে দরিদ্র মানুষের একাউন্টে 7 হাজার টাকা করে দেয়ার দাবি করা হয়েছিল। কিন্তু বিজেপির পক্ষ থেকে দরিদ্র মানুষদের একাউন্টে মাত্র 500 টাকা করেই দেয়া হয়েছে । দেশজুড়ে লাগামছাড়া হয়েছে পেট্রোল-ডিজেলের দাম। সেই বিষয়েও কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদী পরিচালিত বিজেপি সরকারকে তুলোধোনা করতে প্রস্তুতি নিচ্ছে ভারতের জাতীয় কংগ্রেস।

এসব বিষয় খতিয়ে দেখতেই দিল্লি থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে দলীয় সাংসদদের নিয়ে বৈঠকে বসেছিলেন সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী।

7