একের পর এক অস্বস্তিকর ঘটনার মুখোমুখি বিজেপি। এবার দীর্ঘদিন ধরে মাওবাদীদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলার অভিযোগে ছত্তিসগড় পুলিশ শনিবার গ্রেপ্তার করলো এক বিজেপি নেতাকে। এই ঘটনায় যুক্ত থাকার অভিযোগে অন্য আরেক ব্যক্তিকেও গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পুলিশি জেরায় ওই বিজেপি নেতা জানিয়েছেন, বিগত ১০ বছর ধরে তিনি মাওবাদীদের বিভিন্ন রকম দ্রব্য সরবরাহ করেন। পুলিশ সূত্রের খবর অনুসারে ছত্তিশগড়ের দান্তেওয়াড়া জেলার বিজেপি সহ সভাপতি জগত পূজারী এবং রমেশ উসেন্দি দীর্ঘদিন থেকে মাওবাদীদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলছিলেন। বিজেপি নেতা পূজারী এবং অন্য ব্যক্তি আবুজমাদের মাওবাদীদের বিভিন্ন রকম দ্রব্য সরবরাহ করতেন। যার মধ্যে পোশাক, জুতো, কাগজ, প্রিন্টার, কার্টিজ, ব্যাটারি, রেডিও প্রভৃতি আছে।

পুলিশ সূত্রের খবর অনুসারে লকডাউনের সময় মাওবাদী গোষ্ঠীর সদস্যরা চরম খাদ্য সংকটে ভুগছিলো। এইসময়েই তাঁরা যোগাযোগ করে বিজেপি নেতা জগত পুজারীর সঙ্গে। এলাকায় চাষ করার জন্য তাঁরা ওই বিজেপি নেতাকে একটি ট্র্যাক্টর কিনে দিতে বলে। জগত পূজারী ওই ট্র্যাক্টর কেনেন রমেশ উসেন্দির নামে। এই ট্র্যাক্টর কেনা হয় দান্তেওয়াড়ার গীদম থেকে। গত শনিবার অভিযুক্ত রমেশ উসেন্দি যখন ওই ট্রাক্টর মাওবাদী নেতা অজয় আলামিকে পৌঁছাতে যাচ্ছিলেন তখনই পুলিশ তাঁকে গ্রেপ্তার করে।

বিজেপি নেতা জগত পূজারী এবং রমেশ উসেন্দিকে ছত্তিশগড় পুলিশ ছত্তিসগড় জন সুরক্ষা অধিনিয়মে গ্রেপ্তার করেছে। এই বিষয়ে বিস্তারিত তদন্ত করা হবে বলেও পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

পুলিশ আরও জানিয়েছে, বেশ কিছুদিন ধরে বিজেপি নেতা জগত পূজারীকে নজরে রাখা হয়েছিলো এবং তাঁর ফোন কল খতিয়ে দেখা হচ্ছিলো। যাতে দেখা যায় বিজেপি নেতা জগত পূজারী এই সময়ের মধ্যে বহুবার বিভিন্ন মাওবাদী নেতার সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। প্রসঙ্গত মাওবাদী নেতা অজয় আলামীর জন্য ৫ লক্ষ টাকা পুরস্কার ঘোষণা করে রেখেছে ছত্তিশগড় পুলিশ।

16