শিক্ষকেরা লকডাউনে বিপন্ন এলাকাবাসীর প্রতি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে নজির তৈরি করলো লালগঞ্জে।

২৩ শে মার্চের পর থেকে লকডাউনের কারণে স্কুল বন্ধ। করোনার প্রকোপ থেকে বাঁচতে সবার ঘরে তালা বন্দি থাকার কথা হলেও স্কুল সংলগ্ন এলাকার মানুষের দুর্বিসহ অবস্থার কথা জানতে পেরে আর থাকতে পারে নি উত্তর দিনাজপুর জেলার ডালখোলার কাছে লালগঞ্জ লাগুয়া উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক – শিক্ষাকর্মীরা। সারা বছর যে ছাত্র-ছাত্রীদের পড়াশোনা করাতে হয় সেই সন্তান সম ছেলেমেয়েদের পরিবার গুলোতে অনেকের ঠিক মতো খাওয়া জুটছে না জানতে পেরে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিল ঐ স্কুলের শিক্ষক – শিক্ষা কর্মীরা। কোন কোন পরিবার গুলি বিপন্ন তার একটা তালিকা তৈরি করে তাদের হাতে সাহায্য তুলে দিয়েছেন তারা। উল্লেখ্য বিপন্ন পরিবারের তালিকা তৈরি করে তাদের কাছে খবর পৌছে দেওয়ার কাজটা সুন্দর ভাবে পালন করেছে ছাত্ররাই। গত সোমবার এরকম দেড়শো পরিবারের হাতে চাল, ডাল, তেল, আলু, সোয়াবিনসহ ১২ টি নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রীর ব্যাগ তুলে দেওয়া হয় দুঃস্থ পরিবার গুলোর হাতে। এদের মধ্যে বড় সংখ্যায় বিধবা মহিলাদের দেখা যায়। এছাড়াও বেশ কিছু আদিবাসী পরিবারের হাতেও সাহায্য তুলে দেওয়া হয়। একজন ৯৬ বছর বয়স্ক মহিলা কে প্রায় দু কিলোমিটার হেঁটে আসতে দেখে শিক্ষকরা তাকে বসিয়ে একটু সুস্থ করে ত্রাণ সহ তাকে বাড়িতে পৌঁছে দিয়ে আসতে দেখা যায়।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মহঃ জাকির হোসেন বলেন, ” আমার গ্রামের বাড়ি ঐ অঞ্চলে হওয়ার কারণে লকডাউনের মধ্যে একদিন গ্রামের বাড়িতে গিয়ে এলাকার কিছু মানুষের চড়ম দুরাবস্থার কথা জানতে পেরে আমি ব্যাক্তিগত উদ্যোগে শ খানেক পরিবারের হাতে সাহায্য তুলে দিই। সেকথা আমার সহকর্মীরা জানতে পেরে তারা আমাকে অনুরোধ করেন যে বিদ্যালয়ের স্টাফ কাউন্সিলের তরফ থেকে আমরা এই কাজ চালিয়ে যেতে চাই। তারই ফলশ্রুতিতে আজকের এই উদ্যোগ। ভবিষ্যতে আবারও এমন উদ্যোগ নেওয়ার ইচ্ছে আছে। “

242