ওয়েব ডেস্কঃ

দিল্লি থেকে প্রায় কুড়ি দিন ধরে রিকশা চালিয়ে বছর পঞ্চাশের মোহাম্মদ সুলতান ইটাহারে নিজ বাসভূমিতে ফিরে আসলেন। লকডাউন এর ফলে রিকশাচালক মোহাম্মদ সুলতান রিক্সা সওয়ারী না পেয়ে কোনরকমে দিন গুজরান করছিলেন। অবশেষে সঞ্চিত অর্থ শেষ হয়ে আসলে অন্য সকল পরিযায়ী শ্রমিকদের মতন তিনিও পরিবারের টানে বাড়িতে ফিরে আসার কথা ভাবেন। ভাবনা মতোই দিল্লি থেকে রিকশা মিয়ে ইটাহারের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। আসার পথে রাস্তা ভুল করে অন্য রাজ্যেও চলে যান। প্রায় ছয় দিন নের বাড়তি পথ পেরিয়ে তিনি আবার নিজ লক্ষ্যে রওনা হন। এদিন সকালে মোহাম্মদ সুলতান ইটাহার থানার অন্তর্গত সূরুন ১ গ্রাম পঞ্চায়েতে পৌছে তৃণমূল কংগ্রেসের কার্যালয়ে উপস্থিত হন। মহঃ সুলতান কে দেখতে ভিড় জমান স্থানীয়রা। সেখানকার স্থানীয় তৃণমূল নেতা আসলাম আলী ও জেলা পরিষদের সদস্যা বিউটি বেগম এর উদ্যোগে মহঃ সুলতান কে খাদ্য সামগ্রী, নতুন জামাকাপড় তুলে দেওয়া হয়।

তারপর অবশ্য স্থানীয় প্রশাসনের উদ্যোগে অ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে গোটলি হোমগার্ড কোয়ারান্টাইন সেন্টারে পাঠিয়ে দেন।

10