এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালের বিরুদ্ধে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ তুললেন সিপিআই(এম) রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র।
নিজের ফেসবুক পেজ থেকে করা এক পোষ্টে “কৃতজ্ঞতা স্বীকার:ABP আনন্দ। মন্তব্য নিষ্প্রয়োজন।” এই কটি শব্দের সাথে একটি ভিডিও ক্লিপিং জুড়ে দেন তিনি। এই ভিডিও ক্লিপিংসে রাজ্যের করোনা হাসপাতাল হিসেবে ঘোষিত এম আর বাঙ্গুরকে ঘিরে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ রয়েছে।

এবিপি আনন্দের ওই ভিডিও ক্লিপিংস অনুসারে – হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে কেউ মারা গেলে, সেখান থেকে মৃতদেহ সরানো হচ্ছে না বলে অভিযোগ করছেন ওই ওয়ার্ডে ভর্তি অন‍্যান‍্য রোগী ও তাঁদের আত্মীয়-স্বজনরা। পচা গন্ধের মধ্যে থাকতে থাকতে অবসাদগ্রস্থ হয়ে পড়ছেন বলেও অভিযোগ করেছেন কিছু রোগী। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে বিষয়টা জানানো হলে খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

ওই ভিডিও ক্লিপিংস অনুসারে – গত ৯ এপ্রিল থেকে হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন দক্ষিণ ২৪ পরগণার জয়নগরের এক বৃদ্ধ। তাঁর ছেলের অভিযোগ করেছেন তার বাবার পাশের বেডেই থাকা এক ব‍্যক্তি মারা গেলেও, মৃতদেহ সরায়নি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। মৃতদেহ থেকে পচা গন্ধ বেরোচ্ছে। ওয়ার্ডের সমস্ত রোগীর এই গন্ধের মধ‍্যে থাকতে খুব অসুবিধা হচ্ছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ, পুলিশকে জানিয়েও কোনো সুরাহা পাননি তিনি।

একই রকম অভিযোগ করেছেন উত্তর ২৪ পরগণার হাড়োয়ার এক বাসিন্দা। তাঁর বাবাও ওই হাসপাতালের অন‍্য একটি আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন। তাঁর অভিযোগ, সেখানেও মৃতদেহ পড়ে থাকলে তা সরানোর কোনো উদ্যোগ নেয়নি হাসপাতাল। হাসপাতালের সুপার শিশির নস্করকে বিষয়টি জানালে তিনি বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন।

36