কাশ্মীরে ধারা ৩৭০ অবলুপ্তি এবং কাশ্মীর কে কেন্দ্র শাসিত অঞ্চল ঘোষণার পর প্রথম মৃত্যুর ঘটনা ঘটলো। শ্রীনগরের পালুরি অঞ্চলে ওয়েসিব আলতাফ নামের ঐ কিশোর তার বন্ধুদের সাথে খেলার সময় সিআরপিএফ তাদের চেজ করে। তারা সেখান থেকে পালানোর সময় একটি ফুটব্রিজে সিআরপিএফ দুদিক থেকে ঘিরে ফেলায় সিআরপিএফ-এর ভয়ে সবাই নদীতে ঝাঁপ দেয়। বাকিরা স্থানীয় বালি তোলার শ্রমিকদের সাহায্য নিয়ে প্রাণে বাঁচলেও আলতাফ জলে তলিয়ে যায়। পরে তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় মহারাজা হরি সিং হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। সংবাদ মাধ্যম হাপপোস্ট ইন্ডিয়া সূত্রে এখবর জানা গেছে। ঐ সংবাদ মাধ্যম আরো জানিয়েছে যে মহারাজা হরি সিং হাসপাতাল ১৩ জন পেলেটের আঘাত নিয়ে ভর্তি আছে। এদের মধ্যে কয়েকজনের চোখে আঘাত রয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সংগে ঐ সাংবাদিক যোগাযোগ করলে তারা পরিস্কার জানিয়ে দেয় পুলিশের সংগে সংঘর্ষে আহত বা নিহতদের বিষয়ে বিবৃতি দেওয়ার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। হাপপোস্টের সাংবাদিক বেশ কয়েকবার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে অবশেষে মধ্যরাতে নিহত কিশোরের বাড়িতে পৌছে তার বাবার সাথে কথা বলতে সক্ষম হন বলে জানিয়েছেন। তিনি আরো জানান আপাতত স্থানীয়দের বাড়ি থেকেও বেড়োতে নিষেধ করা হয়েছে। ফোন, ইন্টারনেট, টিভি ইত্যাদি সব বন্ধ থাকায় কাশ্মীরের অনেক মানুষ এখনো ৩৭০ ধারা অবলুপ্তি সম্পর্কে কিছুই জানেন না।

8