Categories
রাজ্য

ধেয়ে আসছে ফণি। সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসাবে রাজ্যের সরকারি ও সরকার অনুমোদিত সব স্কুলে ছুটি ঘোষণা করল সরকার

২/৫/১৯,ওয়েবডেস্কঃধেয়ে আসছে ফণি। সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসাবে রাজ্যের সরকারি ও সরকার অনুমোদিত সব স্কুলে ছুটি ঘোষণা করল সরকার।
উপকূল লাগোয়া এলাকায় যেখানে ফণির জন্য সতর্কতা জারি করা হয়েছে, সেখানে ছুটি দেওয়া হয়েছে নিরাপত্তার খাতিরে। আর যেখানে সতর্কতা নেই, সেখানে এই ছুটি বর্ধিত গরমের ছুটি হিসাবে ধরা হবে। অর্থাত্‍ সরকারি ও সরকার অনুমোদিত স্কুলে কাল থেকেই গরমের ছুটি শুরু হচ্ছে। প্রয়োজন পড়লে শেষের দিকে ছুটি মেয়াদ কমিয়ে দেওয়া হবে। এমনটাই জানা গিয়েছে নবান্ন সূত্রে।
প্রসঙ্গত, দুর্যোগ পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবিলায় ইতিমধ্যেই রাজ্যে এসে পৌঁছেছে জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর সেকেন্ড ব্যাটেলিয়ন। পূর্ব মেদিনীপুরের রামনগর ২ নম্বর ব্লকে মোতায়েন হয়েছে এনডিআরএফ-এর একটি দল। গতকাল থেকেই দিঘায় পর্যটক ও বাসিন্দাদের সতর্ক করার জন্য প্রচার চালাচ্ছে এনডিআরএফ কর্মীরা। এছাড়া এই মুহূর্তে রাজ্যে বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে রয়েছে এনডিআরএফ-র ৬টি টিম।

ঝাড়গ্রামের সাঁকরাইল, পশ্চিম মেদিনীপুরের নায়ারণগড়, খড়গপুর, দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার কাকদ্বীপ, উত্তর চব্বিশ পরগনার ধামাখালি ও হাসনাবাদে রয়েছে বাকি দলগুলি। ফণি আছড়ে পড়ার সময় ও তার আগে-পরে কী কী সতর্কতা মূলক ব্যবস্থা নিতে হবে তা গ্রামবাসীদের বোঝাচ্ছেন তাঁরা। চলছে লাগাতার প্রচার। পরিস্থিতি মোকাবিলার রণকৌশল স্থির করতে আজ নবান্নে আপাতকালীন বৈঠকও করেন এনডিআরএফ-এর ডেপুটি কম্যান্ডান্ট।

54

Leave a Reply