২৫/১২/১৮, ওয়েবডেস্কঃ রায়গঞ্জ থানার হাতিয়া এলাকার পাঠানতলি গ্রামের রাস্তা নির্মাণের জন্য মাটি কাটাকে কেন্দ্র করে দুই গোষ্ঠীর সংঘর্ষ, চলল যথেচ্ছ বোমা গুলি।

সেই বোমা গুলিতে আহত এক মহিলা সহ আহত হয় কমপক্ষে ১০ জন।আহতদের রায়গঞ্জ সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গোটা এলাকায় উত্তেজনা রয়েছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়েছে রায়গঞ্জ থানার বিশাল পুলিশবাহিনী।

প্রসঙ্গত, গ্রামটিতে তৈরি হচ্ছে নতুন রাস্তা। সেই রাস্তা নির্মাণের জন্যই প্রয়োজন প্রচুর মাটি। এলাকা থেকে মাটি কেটে রাস্তা নির্মাণের কাজে সরবরাহ করার জন্য দুই গোষ্ঠীর মধ্যে কদিন ধরেই বিবাদ চলছিল রায়গঞ্জ থানার হাতিয়া গ্রামে। গতকাল রাত ন’টা নাগাদ তৃণমূল কর্মী আজিদ খানের বাড়ি লক্ষ্য করে যথেচ্ছ বোমা গুলি চালায় একদল দুষ্কৃতী বলে অভিযোগ। এলোপাথাড়ি বোমা গুলি বর্ষণে আহত হন হাতিয়ার পাঠানতলি এলাকার এক মহিলাসহ বেশ কয়েকজন।

বোমার আঘাতে আহত জফিল শেখ নামে এলাকার এক বাসিন্দা বলেন, কাজ সেরে বাড়ি ফিরছিলাম। আচমকাই রাস্তার উপর শুরু হয় গুলি বোমাবাজি। পায়ে আঘাত লাগে। এলাকার রাস্তা নির্মাণের মাটি কাটা নিয়ে দুই গোষ্ঠীর মধ্যে গন্ডগোলের জেরেই এই সংঘর্ষ বলে জানান আহত ব্যক্তি। দুইগোষ্ঠী সংঘর্ষ নিয়ে জেলা পুলিশ সুপার সুমিত কুমার বলেন, ঘটনাস্থল থেকে বেশকিছু বোমা ও গুলি উদ্ধার হয়েছে। দুষ্কৃতীদের খোঁজে তল্লাশি অভিযান শুরু করা হয়েছে।

44