Categories
রায়গঞ্জ

রায়গঞ্জে পুলিশের মারে জখম পুলিশ

২৩/১১/১৮,ওয়েবডেস্ক: বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশের বিরুদ্ধে পুলিশ পেটানোর অভিযোগ উঠল উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জে। গতকাল রাতে
নেমন্তন্ন রক্ষা করে ছেলেকে নিয়ে কাঞ্চনপল্লী থেকে ফিরছিলেন কসবা চতুর্থ আরক্ষা বাহিনীতে কর্মরত পুলিশকর্মী হরিগোপাল সাহা। বিবেকানন্দ মোড় এলাকায় আসতেই পুলিশ তাঁদের দাঁড় করায় মোটর বাইক তল্লাশীর জন্য। অভিযোগ, তাঁরা কনস্টেবল নাকি সিভিক ভলান্টিয়ার প্রশ্ন করলেই বেধড়ক মারধর করা হয়। নিজেকে পুলিশ কর্মী পরিচয় দিলেও তাঁকে রেয়াত করা হয়নি বলেও অভিযোগ।
এই ঘটনার পর মুখ দিয়ে রক্তক্ষরণ হওয়ার কারণে হরিগোপাল বাবুকে রায়গঞ্জ সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় রাতেই। তাঁর মুখে তিনটে সেলাই পড়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে।
এই বিষয়ে আহত পুলিশ কর্মী হরিগোপাল বাবু বলেন, রাতে নেমন্তন্ন বাড়ি থেকে ছেলেকে নিয়ে ফিরছিলাম। গাড়ির কাগজপত্র, হেলমেট সব কিছুই ছিল সাথে। পুলিশ দাঁড়াতে বললে বিবেকানন্দ মোড় লাগোয়া মিষ্টির দোকানের সামনে দাঁড়াই। এরপর কর্তব্যরতদের নিজের পরিচয় দিয়ে জানতে চাই, তোমরা কনস্টেবল নাকি সিভিক? হরিগোপাল বাবুর অভিযোগ, এই প্রশ্ন করতেই মারধর করা শুরু করে। এরপর ঘন্টাখানেক পর পুলিশের গাড়িতেই নেতাজি মোড়ে নামিয়ে দিয়ে যায়। ঘটনার লিখিত অভিযোগ হরিগোপাল বাবুর পরিবার রায়গঞ্জ থানায় জানাতে গেলে তাঁদের ফিরিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করেছেন তিনি।

72

Leave a Reply