Categories
প্রথম পাতা

চোপড়ায় রাজনৈতিক সংঘর্ষ।এলাকায় পুলিশ বাহিনী

ওয়েব ডেস্ক,২৫/৯/২০১৮:বৃহস্পতিবার চোপড়া ব্লকের ঘিরনিগাও গ্রামপঞ্চায়েতের দোলাপাড়ায় তৃণমূল কংগ্রেস এবং কংগ্রেস ও জোট কর্মীদের মধ্যে ব্যাপক গোলাগুলি ও বোমাবাজি হয়। এই ঘটনায় এক জোট কর্মীর মাথায় গুলি লাগে এবং আরো দুজন গুরুতর আহত হয়। আহতরা ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। এই ঘটনার পর তৃণমূল কংগ্রেসের পঞ্চায়েত সদস্য আলিফ হুসেনের বাড়িতে জোট কর্মীরা হামলা চালায় বলে ও তার বাড়ি ঘর ভাঙচুর করা হয়েছে বলে অভিযোগ। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যান ইসলামপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কার্তিক চন্দ্র মন্ডল, চোপড়া আইসি বিনোদ গোজমের সহ বিশাল পুলিশ বাহিনী। পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সিপিএম কংগ্রেস জোট কর্মীদের অভিযোগ, তাদের জোট কর্মী নুরুল ইসলাম সহ তিন জন বাজার থেকে বাইক নিয়ে বাড়ি যাওয়ার পথে বেশ কয়েকজন দূস্কৃতি তাদের পথ আটকে প্রথমে বেশ কয়েক রাউন্ড গুলি চালায়।
একটা গুলি নুরুল ইসলামের মাথায় লাগলে তারা সকলে বাইক নিয়ে পড়ে যায়। এরই মধ্যে আশেপাশের লোক ঘটনাস্থলে চলে আসলে কয়েকটা বোম ফাটায় এবং এলোপাথাড়ি গুলি চালিয়ে এলাকা থেকে পালিয়ে যায়। তারা সবাই তৃণমূল আশ্রিত বলে অভিযোগ। তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্য কোর কমিটির সদস্য জাভেদ আখতার জানান, অামাদের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ ভিত্তিহীন।
চোপড়া থানার আইসি বিনোদ গজমের বলেন, গুলি চালানোর ঘটনা ঘটেনি। বাঁশের আঘাতে একজনের মাথা ফেটে গেছে। পুলিশ গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেবে।

154

Leave a Reply