৪/১০/১৮,ওয়েবডেস্কঃ আম্বানীর দেশ ছাড়ার নিষেধাজ্ঞা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে মামলা সুইডিশ কোম্পানির।
অনিল আম্বানীর দেশ ছাড়ার নিষেধাজ্ঞা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে আর্জি জানালো সুইডিশ টেলিকম সংস্থা এরিকশন। রাফায়েল কেলেঙ্কারি নিয়ে অনিল আম্বানীকে ঘিরে অভিযোগে ইতিমধ্যেই যথেষ্ট বেকায়দায় আছে মোদী সরকার। এবার এরিকশন কোম্পানি অনিল আম্বানীর R.com সংস্থার বিরুদ্ধে ঋণ নিয়ে ঋণ শোধ না করার বিষয়টি সামনে আনায় নরেন্দ্র মোদী আরো অস্বস্তিতে পরবে বলে রাজধানীর রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন। ইতিমধ্যেই কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী অনিল আম্বানীকে প্রধানমন্ত্রীর “বড় ভাই” সম্বোধনকে কটাক্ষ করেছেন।
ইন্ডিয়া টু ডে সুত্রে জানা গিয়েছে অনিল আম্বানীর R. com সংস্থার সাথে এক যৌথ প্রকল্প রূপায়ণের লক্ষ্যে এরিকশন কোম্পানি বিনিয়োগ করে। বিভিন্ন কারণে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন সম্ভব হয়নি। এদিকে এরিকশনের কাছে R. com সংস্থার অনাদায়ী ঋণের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে৪৫০০০ কোটি টাকা। একটি সমঝোতায় আপাতত Rcom কোম্পানিকে ১৬০০ কোটি ঋণ পরিশোধ করতে হবে স্থির হয়। কিন্তু সেই পরিমাণ অর্থও তারা শোধ করতে অক্ষম হওয়ায় কোর্টের মধ্যস্থতায় ৩০ শে সেপ্টেম্বরের মধ্যে ৫৫০কোটি টাকা এরিকশন কোম্পানিকে মিটিয়ে দিতে বলা হলেও নির্দিষ্ট তারিখ পেরিয়ে যাওয়া সত্বেও সে টাকা অনিল আম্বানীর সংস্থা শোধ না করায় এরিকশন কোম্পানি এবার সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হচ্ছে। তাদের আশঙ্কা অনিল আম্বানী ও তার দুই সহযোগী বিদেশে পালিয়ে যেতে পারে। তাই তাদের দেশ ছাড়ার নিষেধাজ্ঞা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন সুইডিশ কোম্পানির। এরিকশন কোম্পানি অনিল আম্বানী ও তার সংস্থার দুজন উচ্চ আধিকারিকের বিরুদ্ধে আদালতের অবমাননার অভিযোগ এনেছে। জল শেষ পর্যন্ত কোথায় গড়ায় সেটাই এখন লক্ষ্যণীয়।

17