২৮/০৯/১৮,ওয়েবডেস্কঃ এতদিন বারবার খবরে শিরোনাম হয়ে এসছে স্কুল ছাত্রী বা কলেজ ছাত্রী অথবা তরুনী প্রেমের আবেদন প্রত্যাখ্যান করায় অ্যাসিডে আক্রান্ত হতে হয়েছে। এবার চিত্রটা একদম অন্য রকম। বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হওয়া এক কলেজ ছাত্রী অ্যাসিড ছুড়লো এক ছাত্রের মুখে। অ্যাসিড আক্রমনে ছাত্রটির মুখ ও কাঁধ ঝলসে গিয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাতে প্রতিবেশী রিয়া(ভাবনা আকতার) নামের এক কলেজছাত্রীর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ওই ছাত্রী ও তার মা হাসি সুজেদাকে আটক করেছে। এ ব্যাপারে স্থানীয় জামালপুর থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।

জানা গেছে, আক্রান্ত ছাত্র মারুফ জামালপুর সরকারি টেকনিকেল স্কুল এন্ড কলেজে ইলেকট্রনিক্স টেকনোলজির প্রথম বর্ষের ছাত্র।

সুত্রের খবর, রিয়া ও মারুফের মধ্যে মাঝেমাঝে ফোনে কথাও হতো। মারুফ গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে তার এক বন্ধুকে সাথে নিয়ে রিয়াদের বাড়ির সামনে দিয়ে আরেক বন্ধুর বাড়িতে যাচ্ছিল।

সেই সময় রিয়া তাকে বাড়িতে ডেকে ইলেকট্রিকের লাইনটা ঠিক করার অনুরোধ করে।সেই সময় রিয়াদের বাড়িতে বিদ্যুৎ ছিলো না। মারুফ দিনের বেলায় আসতে চাইলে রিয়া তাকে বাধ্য করে। ঠিক সেই সময় রিয়া মারুফের মুখে অ্যাসিড ছোড়ে। মুখ ও কাঁধ অ্যাসিডে ঝলসে যায়। সেই সময় তার চিৎকারে স্থানীয়রা তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

রিয়া ওরফে ভাবনা আক্তার বঙ্গবন্ধু কলেজের ছাত্র। পুলিশ তাকে ও তার মাকে আটক করেছে। মারুফকে ঢাকা মেডিকেল কলেজে ভর্তি করা হয়েছে।

7