৮/০৯/১৮,ওয়েবডেস্ক: পেট্রোপণ্যের মুল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সোমবার বামদলগুলি সহ বিজেপি বিরোধী সমস্ত রাজনৈতিক দলের ডাকা প্রতীকি হরতালের দিন
উত্তর দিনাজপুর জেলা প্রশাসন মিড ডে মিলের কার্যকারিতা ও রূপায়ণ খতিয়ে দেখতে মাননীয় জেলাশাসক ও জেলা প্রশাসনের অন্যান্য অফিসাররা এবং জেলার ৯ টা ব্লকে বি ডি ও সহ পদস্থরা জেলার বিভিন্ন বিদ্যালয়ে পরিদর্শন করবেন বেলা সকাল ১১ টা থেকে ।
এই পরিদর্শনের মধ্যে হরতাল ভাঙার সুগভীর প্রশাসনিক চক্রান্ত দেখছে হরতাল সমর্থনকারী শিক্ষক সংগঠনগুলি।

ভারত বন্ধের দিনে এই কর্মসূচী কিরকম হবে এই প্রসঙ্গে এ বি টি এ-র জেলা সম্পাদক বিপুল মৈত্র বলেন, শিক্ষা দ প্ত র আগাম নোটিশ দিয়েছিল, সোমবার স্বচ্ছ ভারত অভিযানের অঙ্গ হিসেবে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার দিন। মিড ডে মিলের মত সেন্সেটিভ বিষয় নিয়ে পরিদর্শন খুব ভালো প্রস্তাব। কিন্তু প্রতীকি হরতালের দিনে কেন? জেলার যোগাযোগ ব্যবস্থা একমাত্র বাস পরিষেবা। দূর দুরান্তের শিক্ষক শিক্ষিকারা কিভাবে স্কুলে যাবেন? কেন স্বচ্ছ ভারত অভিযানের পরিবর্তে মিড ডে মিড পরিদর্শন ? মিড মিলের কাজ খতিয়ে দেখতে যাওয়ার আগে ঢাকঢোল পিটিয়ে প্রচার করে যাওয়ার অর্থ শিক্ষক শিক্ষিকাদের ধমকানো চমকানোর মত পরিস্থিতি বলে ধারণা।
এ বি পি টি এ জেলা সম্পাদক কৃষ্ণেন্দু রায় চৌধুরী জানান, খুব ভালো কথা, মিড ডে মিল প রিদর্শন ভীষন জরুরী। জেলা প্রশাসনের কাছে বিনীত ভাবে অনুরোধ জানিয়ে সংগঠনের পক্ষ থেকে তিনি বলেন, জেলা প্রশাসন স্কুলে স্কুলে মিড ডে মিল নিয়ে পরিদর্শন করুন। সোমবার হরতালের দিন শিক্ষক শিক্ষিকারা কিভাবে স্কুলে পৌঁছাবেন জানা নেই। পরিবর্তে যে কোন দিন আসুন শিক্ষক শিক্ষিকারা প্রস্তুত।

8