Categories
রাজ্য

মজা করতেই কি ছড়ানো হচ্ছে মোমো আতঙ্ক…

৩/০৯/১৮, ওয়েবডেস্কঃ বিগত কয়েকদিন ধরে গোটা রাজ্যে জাকিয়ে বসেছে মমো আতঙ্ক। কখন স্কুল ছাত্রের ফোনে তো কখন তার নিকট আত্মীয়র ফোনে। শিক্ষক শিক্ষিকা কিংবা গৃহ বধূ কেউ বাদ নেই। সম্প্রতি বিভিন্ন খবরে, নিউজ চ্যানেলের দৌলতে মমো গেম সমন্ধে সকলে ওয়াকিবহাল। তবে অনেকেই মমো গেম নিয়ে তৈরি হওয়া আতঙ্ককে কিছু মানুষের মজা করার একটা মাধ্যম বলে মনে করছেন।

এবার এমনি এক মানুষ পুলিশের জালে। আনন্দ দাস নামে এক সরকারি কর্মীকে গ্রেপ্তার করলো পুলিশ। আনন্দ বাবু সুতি -২ বিডিও অফিসের কম্পিউটার অপারেটর। বন্ধু ইকবাল হোসেনের মোবাইলে ভুয়ো একাউন্ট থেকে মোমোর ম্যাসেজ পাঠানোর জন্য গ্রেপ্তার করলো মুর্শিদাবাদ পুলিশ। প্রসঙ্গত, রাজ্যের পাশাপাশি মুর্শিদাবাদে হু হু করে মোমো আতঙ্ক বাড়তে থাকায় পুলিশ ওঁত পেতে ছিলো। এরপরই ওই অভিযোগ আসতেই পুলিশের সাইবার সেল কাজে লেগে পড়ে এবং ফলও পায় হাতে নাতে। জালে ধরা পড়ে আনন্দ দাস।

আনন্দ বাবুর বন্ধু ইকবাল হোসেন জানান, বহু চর্চিত মোমো গেমের এই ম্যাসেজ নিজের মোবাইলে দেখতে পেয়েই তিনি পুলিশে লিখিত অভিযোগ করেন। ইকবাল বাবুর অভিযোগ +১(৬১৫) ৯০৮৩১৬৯ নম্বর থেকে তাকে এই খেলার প্রস্তাব পাঠানো হয়। পুলিশ তদন্তে নেমে আনন্দ দাসকে গ্রেপ্তার করলে তিনি নিজের অভিযোগ মেনে নেন। শুধু মজা করার জন্য এই কাজটি করেছেন বলে ক্ষমা প্রার্থনা করেন।

এই খবর জানাজানি হতেই অনেকেই বলতে শুরু করেছেন রাজ্যে এই রকম আনন্দ দাসের সংখ্যা তাহলে কম নেই।

77

Leave a Reply