২৮/০৮/১৮, চোপড়া :- দাসপাড়া গ্রামপঞ্চায়েতের বোর্ড গঠন ও প্রধান নির্বাচনকে কেন্দ্র করে তৃণমূল কংগ্রেস ও সি পি আই ম কংগ্রেসের মধ্যে সংঘর্ষ, চলল গুলি বোমা। গুলিবিদ্ধ আটজন৷ আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয় এলাকার বেশ কয়েকটি বাড়িতে। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর দিনাজপুর জেলার চোপড়া থানার দাসপাড়া গ্রামপঞ্চায়েতে। ঘটনাস্থলে র‍্যাফ, কমব্যাট ফোর্স সহ চোপড়া থানার বিশাল পুলিশবাহিনী। সংঘর্ষ থামাতে পুলিশ কাঁদানে গ্যাসের শেল ফাটানোর পাশাপাশি শূন্যে কয়েক রাউন্ড গুলিও চালায়। এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা। এরই মধ্যে চোপড়ার দাসপাড়া গ্রামপঞ্চায়েতের বোর্ড গঠন করে তৃণমূল কংগ্রেস। মোট ২৩ টি আসনের সবকটিতেই জয়লাভ করে তৃণমূল কংগ্রেস। প্রধান নির্বাচিত হন দুলাল মন্ডল এবং উপপ্রধান নির্বাচিত হন মনসুর আলম।গতকালই চোপড়ায় কংগ্রেস- সিপিএম জোট হুমকি দেয় আজ দাসপাড়া গ্রামপঞ্চায়েতের বোর্ড গঠন করতে দেওয়া হবেনা। তাদের অভিযোগ ভোট গণনার দিন সন্ত্রাস করে শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস নিজেদের সদস্যদের জিতিয়ে নেয়। গতকাল লক্ষ্মীপুরের পর আজ দাসপাড়া গ্রামপঞ্চায়েতে কংগ্রেস ও সিপিএম জোট বোর্ড গঠনে বাধা দিতে এলে তৃণমূল কংগ্রেসের সাথে সংঘর্ষ বেধে যায়। চলে যথেচ্ছ গুলি, বোমাবাজি। গুলিবিদ্ধ হয়ে গুরুতর দুপক্ষের আহত হন আটজন কর্মী। এরপর এলাকার বেশকিছু বাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা। নামানো হয়েছে র‍্যাফ ও কমব্যাট ফোর্স। সংঘর্ষ থামাতে আনা হয়েছে জলকামান। ঘটনাস্থল ঘিরে রয়েছে বিশাল পুলিশবাহিনী।

18